সর্বশেষ সংবাদ
Home / সারাদেশ / হানারচরে মা ইলিশের রক্ষার্থের নিবন্ধিত জেলেদের মাঝে শান্তিপূর্ণভাবে ২০ কেজি করে চাল বিতরণ ভিডিত্তসহ

হানারচরে মা ইলিশের রক্ষার্থের নিবন্ধিত জেলেদের মাঝে শান্তিপূর্ণভাবে ২০ কেজি করে চাল বিতরণ ভিডিত্তসহ

মানিক দাস ॥ চাঁদপুর সদর উপজেলার ১৩নং হানারচর ইউনিয়নে সরকারি তালিকা ভূক্ত এক হাজার ৮’শত ১৮জন জেলের মাঝে ২০ কেজি করে চাল বিতরণ করা হয়েছে। সরেজমিনে গিয়ে দেখা যায়, নিবন্ধিত ১ হাজার ৮শ ১৮ জন মা ইলিশ নিধনে না নামার কারণে প্রত্যেক জেলে পরিবারকে ২০ কেজি করে চাল দেয়া হয়েছে।

 

১৯ অক্টোবর শনিবার সকাল থেকে বিকাল ৪টা পর্যন্ত একটানা চাল বিতরণ করেন ইউপি চেয়ারম্যান হাজ্বী আব্দুস সাত্তার রাঢ়ী, ইউপি সচিব এম,এ,কুদ্দুস আখন্দ রোকন, প্যানেল চেয়ারম্যান হারুনুর রশিদ খান, ইউপি সদস্য আব্দুল হালিম বেপারী, আব্দুল বারেক তালুকদার, দেলোয়ার হোসেন বেপারী, আবুল বাসার দর্জি, অলি উল্লাহ মিজি, আবুল খায়ের ছৈয়াল, রাশিদা বেগম, শামীমা বেগম, খুরশিদা বেগম, টেক অফিসার সুদির পর্বত।

চাল বিতরণের বিষয়ে ইউপি চেয়ারম্যান সাংবাদিকদের জানান, প্রত্যেককে ২০ কেজি করে চাল দেয়া হয়েছে। আমার ইউনিয়নে ১ হাজার ৮শ ১৮ জন জেলে রয়েছে তাদের প্রত্যেককে চাল দেয়া হয়েছে। আমি জেলদেরকে ঠকানোর জন্য চেয়্যারম্যানের দায়িত্ব নেয়নি।

আমার ইউনিয়ন নদী ভাংতি ইউনিয়ন। এখানকার মানুষ নদীর সাথে যুদ্ধ করে বেঁচে থাকতে হয়েছে। সরকার আমার ইউনিয়নের নিবন্ধিত ১ হাজার ৮শ ১৮জন জেলের জন্য ৯শ মণ চাল বরাদ্দ দিয়েছে। আমি প্রত্যেক জেলেকে ২০ কেজি পরিমাণ চাল দিয়েছি। কোন জেলেকে কম চাল দেওয়া হয়নি।

জেলে নুরু গাজী, সেলিম বেপারী, মুনাফ মিজি, বিল্লাল রাঢ়ী, আব্দুল বারেক রাঢ়ী, আব্দুর রহমান, আল-আমিন, বিল্লাল মাল সহ আরও অনেকে বলেন, আমরা ২০ কেজি পরিমানের চাল পেয়েছি। সরকারি খাদ্য গুদাম থেকে আনার সময় চাউলে কিছুটা ঘাটতি থাকতে পারে। তবে আমরা যারা নিবন্ধিত জেলে রয়েছি তারা ২০ কেজি পরিমানই চাল পেয়েছি।

পোস্টটি শেয়ার করুন
Share

Leave a Reply

x

Check Also

নওগাঁয় দুঃস্থ আসহায় ও প্রতিবন্ধিদের মাঝে শীত বস্ত্র বিতরণ

আতাউর শাহ্, নওগাঁ প্রতিনিধিঃ নওগাঁয় জেলা আওয়ামীলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক মরহুম সামশুল হকের ...