সর্বশেষ সংবাদ
Home / লাইফস্টাইল / আখের রসের যত স্বাস্থ্য উপকারিতা

আখের রসের যত স্বাস্থ্য উপকারিতা

ক্রাইম এ্যাকশন ডেস্ক
আখের রস খুব সহজলভ্য এবং খুব উপকারী একটি পানীয়। এই গরমে তেষ্টা তো মিটবেই, সঙ্গে শরীরেরও অনেক উপকার হবে। আখের রসে প্রচুর পরিমাণ অ্যান্টি-অক্সিডেন্ট রয়েছে যা শরীরের টক্সিন বের করে বাড়তি এনার্জি দেয়। আখের রসের বাকি গুণগুলোর কথা চলুন জেনে নেওয়া যাক।

জন্ডিসের চিকিৎসায় : আখের রসে প্রচুর ফাইবার এবং মাইক্রো-মিনারেলস রয়েছে। আখের রস যকৃতের জন্য খুবই উপকারী। জন্ডিসের চিকিৎসায় আখের রস ব্যবহার করা হয়।

হার্ট অ্যাটাক প্রতিরোধ : প্রতিদিন আখের রস পান করলে কোলেস্টরলের মাত্রা স্বাভাবিক থাকে। এতে হার্ট অ্যাটাকের সম্ভাবনা অনেকাংশে কমে যায়।

ডায়াবেটিস দূরে থাকে : গ্লাইসেমিক ইনডেক্সে একেবারে তলার দিকে থাকার কারণে আখের রস খেলে রক্তে শর্করার মাত্রা হঠাৎ করে বেড়ে যাওয়ার কোনো আশঙ্কা থাকে না, বরং এই প্রকৃতিক উপাদানটি গ্রহণ করলে সুগার লেভেল নিয়ন্ত্রণে থাকে।

এনার্জির ঘাটতি দূর হয় : আখের রসে থাকা কার্বোহাইড্রেট, প্রোটিন, আয়রন, পটাশিয়াম এবং অন্যান্য উপকারী উপাদান শরীরে প্রবেশ করার পর এনার্জির ঘাটতি দূর করে। ফলে স্বাভাবিকভাবেই মন এবং শরীর, দুইই চনমনে হয়ে ওঠে।

হজমক্ষমতার উন্নতি ঘটে : আখের রসে থাকা পটাশিয়াম শরীরে প্রবেশ করার পর হজমে সহায়ক একাধিক পাচক রসের ক্ষরণ বেড়ে যায়, যে কারণে হজম ক্ষমতার উন্নতি ঘটতে সময় লাগে না।

ত্বক ও চুলের সুস্থতা : আখের রসে থাকা আলফা হাইড্রক্সি এসিড ত্বকের কুঁচকে যাওয়া রোধ করে। সেই সঙ্গে অ্যাকনি ও মাথায় খুসকিও দূর করে।

কোষ্ঠ্যকাঠিন্য দূর করতে : আখে থাকা ফাইবার কোষ্ঠকাঠিন্য দূর করে। দেহে দুর্বলভাবও কমায় আখের রস।

বন্ধ্যাত্ব প্রতিরোধ :আখের রস বন্ধ্যাত্ব প্রতিরোধেও সক্ষম। গর্ভবতী মায়েদের জন্য আখের রস খুবই উপকারী। স্পার্ম কাউন্ট বৃদ্ধি করতেও উপকারী।

পোস্টটি শেয়ার করুন
Share

Leave a Reply

x

Check Also

ইফতারে থাকুক পুষ্টিকর ও সুস্বাদু ফালুদা

লাইফস্টাইল ডেস্ক ইফতারে যারা ভাজাপোড়া জাতীয় খাবার এড়িয়ে চলতে চান তাদের জন্য ...